ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় নবজাতককে রেখে মায়ের পলায়ন 2

ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় নবজাতককে রেখে মায়ের পলায়ন

ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় নবজাতককে হাসপাতালে রেখে পালিয়ে গেছে শিশুর মা। সোমবার ভোরে শিশুর মা পালিয়ে যাওয়ার পর শিশুটি বর্তমানে ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেনারেল হাসপাতাল কর্তৃপক্ষের তত্ত্বাবধানে আছে।

হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ বিষয়টি পুলিশকে অবহিত করেছেন। ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেনারেল হাসপাতাল সূত্রে জানা যায় রবিবার রাত ১১টায় কে বা কারা অজ্ঞাতনামা এক গর্ভবতী মহিলাকে হাসপাতালের জরুরী বিভাগের সামনে রেখে চলে যায়।

পরে ওই মহিলাকে দেখে হাসপাতালের চতুর্থ শ্রেণীর কর্মচারী মোতাহের হোসেন সেন্টু তাকে গাইনী বিভাগে ভর্তি করান। রাত তিনটার দিকে ওই মহিলা এক ছেলে বাচ্চা প্রসব করেন। ওইদিনই খুব ভোরে সকলের অগোচরে সদ্য জন্ম দেয়া শিশু সন্তানকে হাসপাতালে রেখে তার মা পালিয়ে যান।

এই ব্যাপারে ব্রাহ্মণবাড়িয়া সদর মডেল থানার এস আই নারায়ণ চন্দ্র দাস বলেন, নবজাতককে রেখে তার মা চলে যাওয়ার পর আমরা শিশুটির খোঁজ-খবর রাখছি। হাসপাতালের তত্ত্বাবধায়ক ডা. শওকত হোসেনের তত্ত্বাবধানে অসুস্থ শিশুটিকে হাসপাতালে চিকিৎসা দেয়া হচ্ছে। মঙ্গলবার সকালে হাসপাতালের শিশু বিশেষজ্ঞ ডাঃ ইকবাল হোসেন শিশুটিকে চিকিৎসা দেন। বর্তমানে শিশুটি অনেকটা সুস্থ আছে।

হাসপাতালের চতুর্থ শ্রেণীর কর্মচারী মোতাহের হোসেন সেন্টু বলেন, রবিবার রাতে তিনি ডিউটি করার সময় ওই মহিলার কান্না শুনে মহিলাকে নিয়ে গাইনী বিভাগে ভর্তি করান। প্রয়োজনীয় ঔষধপত্র কিনে দেন। রাত তিনটার দিকে ওই মহিলা একটি ছেলে শিশু জন্ম দেন। সকালে তিনি শুনতে পান নবজাতককে রেখে তার মা উধাও হয়ে গেছেন।

এ ব্যাপারে ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেনারেল হাসপাতালের তত্ত্বাবধায়ক ডা.শওকত হোসেন বলেন, বিষয়টি জানতে পেরে আমি শিশুটির খোঁজ-খবর নেই। পরে পুলিশ ও সমাজ সেবা অফিসারকে বিষয়টি অবহিত করি। তিনি বলেন, শিশুটি আমাদের তত্ত্বাবধানে আছে। তার কাপড়-চোপড় ও খাবারের ব্যবস্থা করা হয়েছে। শিশুটি পুরোপুরি সুস্থ হলে তাকে জেলা সমাজসেবা কার্যালয়ের কর্মকর্তাদের কাছে হস্তান্তর করা হবে। কেউ যদি শিশুটি দত্তক নিতে চায় তাহলে তাকে সেখানেই যোগাযোগ করতে হবে।

Leave a Comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *

15 − three =