পশু জবাইয়ের ছুরি, দা তৈরিতে ব্যস্ত কামারপল্লী 2

পশু জবাইয়ের ছুরি, দা তৈরিতে ব্যস্ত কামারপল্লী

দরজায় কড়া নাড়ছে পবিত্র ঈদুল আযহা। ব্যস্ততা বেড়েছে চাঁদপুর ও কিশোরগঞ্জের কামারপল্লীগুলোতে। কোরবানির পশু জবাইয়ের ছুরি, দা তৈরিতে ব্যস্ত সময় কাটছে কামারদের। যদিও লোহা ও কয়লার দাম বাড়ার কারণে এই ব্যবসা আগের মত নেই বলে দাবি তাদের। সারা বছর কাজ থাকলেও কোরবানির ঈদের আগে তাদের ব্যস্ততা থাকে সবচেয়ে বেশি। সকাল থেকে শুরু করে গভীর রাত পর্যন্ত তারা ব্যস্ত সময় পার করছেন।

বিভিন্ন জায়গা থেকে লোকজন আসছেন গরু কাটার দা, চাপাতি, ছুরিসহ নানা জিনিস কিনতে। আবার অনেকে আসছেন পুরোনো দা, চাপাতি, বটি, ছুরি ধারালো করতে। ছুরি প্রকার ভেদে ৫শ’ থেকে ১২শ’ টাকা, দা ৩শ’ থেকে ৭শ’ টাকা, বটি প্রকার ভেদে ৩শ’ থেকে ৮শ’ টাকা, চাপাতি ৪শ’ থেকে ১২শ’ টাকা এবং ছোট আকৃতির ছুরি ৫০ থেকে ২শ’ টাকা দামে বিক্রি হচ্ছে। ক্রেতাদের অভিযোগ, প্রতিবছরই কোরবানীর ঈদে এসবের দাম বেড়ে যাচ্ছে।

কোরবানির কাজে ব্যবহার করা ধারালো অস্ত্র কেউ যাতে নাশকতা বা অপরাধমূলক কাজে ব্যবহার করতে না পারে, সে ব্যাপারে সতর্ক থাকার কথা জানিয়েছে আইন শৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনী।

গমগমে লাল লোহায় হাতুরি দিয়ে পিটিয়ে আকার ও সান দেয়া হচ্ছে ছুরি চাপাতিতে। দম ফেলার সময় নেই কামারদের। ঈদ যত এগিয়ে আসছে, ততই বাড়ছে ভিড়। বেচা-বিক্রিও হচ্ছে বেশ ভালো।

Leave a Comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *

seven + six =