আমেরিকান গরু আমিষ খায় তাই তার দুধও আমিষ 2

আমেরিকান গরু আমিষ খায় তাই তার দুধও আমিষ

আমেরিকান গরু আমিষ খায় তাই তার দুধ বা দুগ্ধজাত কোন পণ্য ভারতে আমদানি করতে দেবেনা ভারতের কট্টরপন্থী হিন্দুত্ববাদী দল আরএসএস।

দেশটির ক্ষমতাসীন বিজেপি সরকারের কাছে এমনটাই দাবি জানিয়েছে তারা। খবর আনন্দবাজার পত্রিকার।

আরএসএস বলছে, গোমাতাকে হতে হবে খাঁটি নিরামিষাশী, তবেই গোদুগ্ধ পবিত্র থাকবে। গোমাতা যদি নিজেই আমিষাশী হয়ে যায়, তা হলে তার দুধও আর পবিত্র থাকবেনা।

আর আমিষ-নিরামিষ দুধের এই বিবাদেই যুক্তরাষ্ট্রে উৎপন্ন গরুর দুধ এ ভারতে আমদানির ছাড়পত্র পাচ্ছে না।

আরএসএস নেতারা জানিয়ে দিয়েছেন, যজ্ঞে গরুর দুধ আহুতি দিতে হয়, পুজোতেও গরুর দুধ লাগে।

হিন্দুদের কাছে গরুর দুধ নিরামিষ। কিন্তু আমেরিকায় গরুকে আমিষ খাওয়ানো হয়, গরু আমিষ খেলে তার দুধও আমিষ হয়ে যায়। আমিষ দুধ পুজো বা যজ্ঞে কাজে লাগবে না। নিরামিষভোজী হিন্দুরাও আমিষ দুধ মুখে তুলতে পারবেন না।

এর জেরেই যুক্তরাষ্ট্র থেকে কোনপ্রকার আমিষভোজী গরুর দুধ বা অন্যান্য ডেইরি পণ্য আমদানির ক্ষেত্রে নেতিবাচন সিদ্ধান্তে আছে ভারত সরকার।

ফলে ডোনাল্ড ট্রাম্পের ভারত সফরের সময় দু’দেশের বাণিজ্য চুক্তির সামনেও ঝুলছে নানা প্রশ্ন। মোদী সরকার আমিষাশী গরু নিয়ে আপত্তি তোলায় ট্রাম্প প্রশাসনের সঙ্গে মোদী সরকারের বাণিজ্য চুক্তি হবে কি না, তা নিয়েই প্রশ্ন।

আরএসএস নেতারা জানায়, আমেরিকাকে লিখিত ভাবে জানাতে হবে যে সব গরুর দুধ পাঠানো হবে তাদের শুধু নিরামিষ খাবারই খাওয়ানো হয়।

আরএসএস-এর স্বদেশি জাগরণ মঞ্চের যুগ্ম-আহ্বায়ক অশ্বিনী মহাজন বলেন, দেশের সংখ্যাগরিষ্ঠ মানুষের ধর্মবিশ্বাসে আঘাত লাগে, এমন কোনও পণ্যের জন্য দেশের বাজার খুলে দেওয়ার বিরোধিতা করব আমরা।

Leave a Comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *

four × 3 =